জামিন পেলেও মুক্তি মিলবে না খালেদা জিয়ার!

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দু’র্নীতি মা’মলায় সাত বছরের দ’ণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জামিন চেয়ে করা আপিল আবেদনের ওপর শুনানি চলছে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে। বৃহস্পতিবার (১২ ডিসেম্বর) প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগে শুনানি শুরু হয়। আ’লোচিত এ মা’মলায় আজ জামিন পেলেও কি মুক্তি মিলবে খালেদা জিয়ার?

খালেদা জিয়ার বি’রুদ্ধে সাজা ও অর্থদ’ণ্ড শুধু এ মা’মলায় হয়নি। চাঞ্চল্যকর জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দু’র্নীতি মা’মলায় তাকে ৫ বছরের কারাদ’ণ্ড দেন আ’দালত। পরে রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনে ওই মা’মলায় তার ১০ বছর দ’ণ্ড হয়। ফলে, এ মা’মলায় জামিন পেলে সহসাই মুক্তি মিলছে না খালেদার। তবে আইনজ্ঞরা বলছেন, চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মা’মলায় জামিন পেলে অ’পর মা’মলায়ও তার জামিন প্রক্রিয়া সহ’জ হবে। কেননা, খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যগত দিক বিবেচনা করেই আ’দালতে জামিনের আবেদন করেছেন তার আইনজীবীরা। আজকের শুনানিতে সরকার পক্ষ বিরোধীতা যদি না করেন তাহলে খালেদা জিয়ার মুক্তি মিলতে পারে বলে ধারণা করছেন আইন বিশেষজ্ঞরা। প্রায় ১০ বছর আগে, ২০০৮ সালের জুলাই মাসে সেনা সম’র্থিত তত্ত্বাবধায়ক সরকার দায়িত্বে থাকার সময় জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুনীতির মা’মলা’টি করেছিল দু’র্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

এ মা’মলায় খালেদা জিয়ার ৫ বছর (পরবর্তীতে ১০ বছর) ও তার ছেলে এবং বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ অন্য ৫ আ’সামিকে ১০ বছর করে কারাদ’ণ্ড দেন আ’দালত। একইসঙ্গে তাদেরকে ২ কোটিরও বেশি বেশি টাকা অর্থদ’ণ্ড দেয়া হয়। ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি চাঞ্চল্যকর এ মা’মলার রায় দেন ঢাকার বিশেষ আ’দালত। দীর্ঘদিন কারাগারে থাকায় অ’সুস্থ হয়ে পড়েন খালেদা জিয়া। ফলে চিকিৎসার জন্য তাকে নেয়া হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে। বর্তমানে তিনি সেখানেই চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আ’দালতে খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনের শুনানিতে আছেন- জ্যেষ্ঠ আইনজীবী জয়নুল আবেদীন, খন্দকার মাহবুব হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহম’দ, নিতাই রায় চৌধুরী, একেএম এহসানুর রহমান প্রমুখ। দু’র্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পক্ষে আছেন আইনজীবী মো. খুরশীদ আলম খান। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *